দুলাভাই এর গাড়ি - goArif

দুলাভাই এর গাড়ি

দুলাভাই এর গাড়ি । সে অনেকদিন আগের কথা। তখন আমি ক্লাস থ্রি তে পরতাম। তো ঈদের কয়কদিন পর দুলাভাই আমাদের বাড়ি আসলো। দুলাভাই বাড়ি আসছে দেখে আমার খুব আনন্দ হচ্ছিল। কারন, দুলাভাই আমাদের বাড়িতে যতদিন থাকবে ততদিনই দুলাভাই আমাকে টাকা দিত চকলেট, চিপস ইত্যাদি খাওয়ার জন্য। মা অবশ্য এটা মোটেই পছন্দ করতেন না। দুলাভাই কে অনেকবার নিষেধ করেছেন আমাকে এভাবে টাকা দিতে। তারপরও দুলাভাই আমাকে গোপনে টাকা দিতেন।

আরো পড়ুনঃ কী হিংসে হয়, আমার মত হতে চাও? সিফাত উল্লাহ ওরফে ‘সেফুদা’

যথারীতি দুলাভাই আসার ২য়দিন আমাকে চিপস খাওয়ার টাকা দিল। আমাদের গ্রামেই ছোট একটা মুদি দোকান ছিল। আমি টাকা পেয়ে দৌড়ে দোকানে গেলাম। একটা চিপস কিনলাম।

আপনাদের মনে আছে কি?  তখন চিপস কোম্পানি একটা নতুন অফার দিচ্ছিল। চিপস এর গায়ে একটা ক্রেস্কার্ড ছিল, যেটাতে ঘষলে নানা রকম পুরষ্কার পাওয়া যেত।

আমি চিপস এর ক্রেস্কার্ড ঘষতেই একটা লেখা দেখতে পেলাম “গাড়ি” । আমি দোকানদার কে দেখালাম যে, আমি গাড়ি পেয়েছি। দোকানদার আমাকে বলল তাঁর কাছে এখন গাড়ি নেই তাঁর সাপ্লাইয়ার রবিবার দিন আসবে। তাঁর কাছ থেকে তিনি গাড়ি রেখে দিবেন। দোকানদার আমাকে বললেন, রবিবার এসে যাতে গাড়ি নিয়ে যাই।

আমি তো মহা খুশি, আমি গাড়ি পেয়েছি। বাড়ি গিয়ে সবাইকে বললাম আমি গাড়ি পেয়েছি। দোকানদার বলেছে সামনের রবিবারে গাড়ি এনে দিবে। প্রমান সরূপ চিপস এর প্যাকেট দেখালাম সাবাকে।

একথা শুনে দুলাভাই ভেবেছেন আমি বড় গাড়ি পেয়েছি। তিনি সবাইকে বুজিয়ে বললেন, আজকাল অনেক কোম্পানি তাদের পণ্য বিক্রয় এর জন্য নানা প্রকার পুরষ্কার দিয়ে থাকে। যেমনঃ গাড়ি, ফ্রিজ, এয়ারকন্ডিশন, টিভি, মোবাইল, নগত টাকা ইত্যাদি।

আমি দুলাভাই এর টাকায় গাড়ি পেয়েছি। বাড়ির সবাই খুশি। বাড়ির সবাই এখন ভাবছে গাড়ি তো কেউ চালাতে পারে না। গাড়ির জন্য নতুন ড্রাইভার নিয়োগ করবে, নাকি গাড়ি টি বিক্রয় করে দিবে।

যাইহোক, গাড়ি পাওয়া নিয়ে যেন বাড়িতে আনন্দের সীমা নেই। সবাই রবিবার দিন এর অপেক্ষা করছে।

রবিবার দিন আসল। দুলাভাই বিকেলে আমাকে নিয়ে দোকানে গেলেন। গিয়ে দোকানদার কে গাড়ি দিতে বললেন। দোকানদার একটা ছোট খেলনা গাড়ি আমার হাতে দিয়ে বললেন, এই নাও তোমার গাড়ি।

খেলনা গাড়ি দেখেতো দুলাভাই অবাক! একি আপনি ওকে খেলনা গাড়ি দিলেন কেনো? ওতো খেলনা গাড়ি পায়নাই। আসল গাড়ি পেয়েছে। সেটা কই?

দুলাভাই এর কথা শুনে তো এবার দোকানদার অবাক। এ আপনি কি বলছেন, ও আসল গাড়ি পেয়েছে সেটা আপনাকে কে বলল? দুলাভাই এবার আমার হাতে থাকা চিপস এর প্যাকেট টা নিয়ে দোকানদার কে দেখিয়ে বললেন, এখানে কি কোথাও খেলনা গাড়ি লেখা আছে? নাকি শুধু গাড়ির কথা লেখা আছে?

দোকানদার বললেন, ওরা হয়তো ভুলে খেলনা কথাটা লিখে নাই। আসলে গাড়ি মানে খেলনা গাড়ি।

আরো পড়ুনঃ বাংলাদেশ বিমান বাহিনী জাদুঘর ভ্রমণ, ঢাকা

দুলাভাই এবার একটু রেগে গিয়ে বললেন, আমাকে আপনি বোকা পেয়েছেন! আমি বুজিনা? ও পেয়েছে আসল গাড়ি, আর আপনি বলছেন, খেলনা গাড়ি পেয়েছে! নাকি আপনি গাড়ি পেয়ে সেটা বিক্রি করে দিয়েছেন।

বেশকিছুক্ষন দোকানদার আর দুলাভাই এর মাঝে গাড়ি নিয়ে তর্কাতর্কি হল। শেষে দোকানদার দুলাভাইকে বলল, আপনি যেহেতু আমার কথা বিশ্বাস করছেন না। তাহলে, আগামী রবিবার আবার যখন সাপ্লাইয়ার আসবে… আমি তাঁর সাথে আপনাকে কথা বলিয়ে দিবো।

দুলাভাই তাতে রাজি নন। দুলাভাই এর কথা আপনারা ২ জন মিলেই এ কাজ করেছেন।

যাইহোক, শেষে এই গাড়ি নিয়ে গ্রামে সালিশি বসানো হয়েছিল! সালিশিতে সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, সাপ্লাইয়ার এর বস এর সাথে দুলাভাই আর দোকানদার কথা বলে জানতে পারে ব্যাপার টা আসলে খেলনা গাড়িই ছিল।

আজও দুলাভাই এর সাথে কথা হলে মাঝে মাঝেই আমি দুলাভাই এর সেই গাড়ির কথা বলি। দুলাভাই আমাকে বলে বাড়িতে নাকি এই বিষয় নিয়ে কথা হলে সবাই অট্টহাসিতে ফেটে পড়ে। আহা দুলাভাই এর গাড়ি ।

আরো দেখুনঃ Bangla SMS Collection | বাংলা এসএমএস

( লেখাটা কাল্পনিক ছোট গল্প। কারো সাথে মিলে গেলে আমি দায়ী নই। )

আমার ইউটিউব চ্যানেলঃ GoArif

৪ টি মন্তব্য

আমাদের মন্তব্য নীতি অনুযায়ী পরিচালনা করা হয় এবং আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশ করা হবে না। দয়া করে নাম দেয়ার ক্ষেত্রে কীওয়ার্ড ব্যবহার করবেন না। আসুন একটি ব্যক্তিগত এবং অর্থপূর্ণ কথোপকথন হয়ে যাক 😊 ।





আর্কাইভ